কিছু কথা নতুন পুরান যারা অনলাইন এরিনাতে এসেছেন বা আসতে চাইছেন সকলের প্রতি!!

কিছু কথা নতুন পুরান যারা অনলাইন এরিনাতে এসেছেন বা আসতে চাইছেন সকলের প্রতি তাদের মধ্যে আমার অনেক ক্লোস কিছু বন্ধুদের উদ্দ্যেশ্য করেও বলা –

প্রথমত ফ্রিল্যান্সিং একটি সম্ভাবনাময় সেক্টর । এখানে আপনি যদি কাজ পারেন আপনার ভ্যালু থাকবে আর সব যায়গার মত এখানেও টাকা শব্দ টা রয়েছে এবং বেশ ভাল ভাবেই রয়েছে । কিন্তু কথা হচ্ছে আপনি কি টাকার জন্য ফ্রিল্যান্সিং করবেন ? শখের বসে করবেন ? নাকি হথাৎ ইচ্ছা হচ্ছে তাই করবেন !!!! নাকি জাস্ট চেখে দেখতে চান জিনিসটা আসলেই কি !!

যেহেতু সকলের মন মানসিকতা আলাদা , চিন্তা ধারা আলাদা , তাই মতামতের পার্থক্য ও প্রয়োজনীয়তা ভিন্ন হতেই পারে, সেটা নিয়ে আর কথা না বলি তাই যার  জেই চাহিদাই থাক এখানে এই ফ্রিল্যান্সিং , আউটসোর্সিং যাই করতে চান না কেন আপনাকে জানতে হবে , শিখতে হবে প্রতিনিয়ত , আপনি যদি কাজ পারেন তবেই আপনি আয় করতে পারবেন এবং ফ্রিল্যান্সিং এরিনাতে টিকে থাকতে পারবেন… যদি আপনি কাজ না পারেন কিন্তু আগ্রহী হোন তাহলে আমি বলব কাজ শিখতে থাকুন পাশাপাশি কোন বড় ভাই , পরিচিত জন , ছোট ভাই যে কাজ করছে তাদের থেকে কাজ নিয়ে সেই কাজ করার চেস্টা করুন  অনেকটা ইন্টার্র্নি করার মত , হতে পারে তা ফ্রি  তবে তা আপনার জন্য কি পরিমান লাভবান হবে তা আপনি নিজেই বুঝতে পারবেন  আর ফ্রিল্যান্সিং এর এরিনাতে সবচেয়ে বড় কথা আপনাকে অধ্যাবসায়ী হতে হবে , শিখতে হবে এবং একটা নিদিষ্ট সময় ধার্জ করতে হবে এই সিখার জন্য তবেই আপনি অন্যদের সাথে প্রতিযোগিতায় টিকে থাকতে পারবেন, মনে রাখবেন জীবন মানেই প্রতিযোগিতা । আপনার স্কিল যত ভাল হবে আপনি তত এগিয়ে থাকবেন…

এবার আসি অন্য আরেকটি বিষয়ে যা একদম নিজের অভিজ্ঞতা থেকে বলছি আপনি কাজ পারেন কিন্তু অলস !! বিড করতে ইচ্ছা করে না !! কাজ করতেও ভাল লাগে না !! তাহলে আপনি এই সেক্টর কে সিরিয়াসলি না নেয়ার জন্য অনুরোধ রইল  শিখতে ভাল লাগে ??? তাহলে শিখতে থাকুন …কারন পৃথিবীতে যাই সিখবেন তাই কোন না কোন সময় কাজে লেগে যাবে এবং এই একটা জিনিসেই কোন লস নেই । যত শিখবেন ততই লাভ । আমার অনেক বন্ধুরা আমাকে বলে দোস্ত এটা শিখা ওটা সিখা আমি সবসময় বলি যে সময় নেই।। কারন আমি আসলে ওদের মধ্যে শিখার আগ্রহ দেখি নি… তোরা কে কি মনে করলি তাতে আমার কিছু আসে যায় না হয়ত অনেকেই বলবি হ তুই একটা কিছু..সত্যি বলছি আমি কিছু না ..খুব একটা কাজ ও পারি না এবং করি ও না কিন্তু সত্যি আমি তোদের কারও মধ্যে সেভাবে শিখার আগ্রহ দেখতে পাই নি শুধু মাত্র টাকার চাহিদা এবং আয়ের চিন্তা দেখেছি..আমি অবশ্যই সবাইকে গাইডলাইন দিয়েছি নিজে যা জানি তার থেকে কেউ বলতে পারবে না গাইড লাইন দেখাই নি কিন্তু আমার নিজের পক্ষে তোদের শেখানোর মত সময় ছিল না বা আমার পক্ষে সেখানো সম্ভব নয় বলেই আমি তা করতে পারি নি শেখার আগ্রহ থাকলে যখন থেকে আমাকে বলেছিলি দোস্ত শিখা এতদিনে অন্য কিছু শিখতে এবং করতে পারতি।। অর্থাৎ আগ্রহের অভাব ।

শেষ কথা… ফ্রিল্যান্সিং করুন আর আউটসোর্সিং করুন বা অন্য যাই করুন না কেন।। একটি লক্ষ্য স্থির করে আগাবেন প্লিস নিজের জীবনে থেকে বলছি সবার সময় সব সময় সেম যায় না ।  আপনি খুব ভাল কাজ করেন খুব ভাল স্কিল আছে কিন্তু তার পরও হয়ত আপনার কাজ নাও থাকতে পারে কোন এক সময়… সেই সময়ের কথা মাথায় রেখে দীর্ঘ মেয়াদী কিছু করার চিন্তা করুন । আগে থেকেই প্ল্যান করে আগান । আপনার আয়ের একটা নিদিষ্ট অংশ সঞ্চয় করুন সেই সময়ের জন্য ।  নিজেকে প্রস্তুত রাখুন । এমন কিছু করবেন না যা আজকে আছে কালকে নেই।। যার কোন ভ্যালু ২ মাস পরে নেই হয়ত এক্সপেরিমেন্ট এর জন্য সেটা করতে পারেন কিন্তু সেটাকেই ক্যারিয়ার হিসেবে নিলের আর ৬ মাস পর সেটা নেই হয়ে গেল তখন আপনি কি করবেন ?? যদি এমন হয় তখন আপনার পক্ষে শেখার জন্য সময় দেয়া সম্ভব হচ্ছে না … তাহলে !! যাই করুন না কেন দীর্ঘ মেয়াদী করুন । এতে হয়ত সময় বেশি লাগবে । অনেক দিন পর্যন্ত আয়ের মুখ দেখবেন না । অনেক কস্ট হবে তবে ট্রুলি বলছি এটাই আপনার জীবনের সবচেয়ে বড় এসেট হবে ।

একটা উদাহরন দেই  আপনার পর্ন রিলেটেড একটা সাইট আছে, সেখানে আপনি বিভিন্ন ভিডিও প্রোমোট করেন  ছবি প্রোমোট করেন বা আপনার একটি প্রিমিয়াম কুকির , অ্যাকাউন্ট এর ওয়েবসাইট আছে , প্রিমিয়াম প্রোডাক্ট এর ওয়েবসাইট আছে , হতে পারে তা থিম , ওয়ারিওর স্পেশাল প্রোডাক্ট ইত্যাদি । একটা নিদ্দিস্ট সময়ের জন্য আপনি খুব ভাল আয় করছেন । তাহলে আমি বলব সেটাকে সাইড বিসনেস হিসেবে রাখতে পারেন অল্প সময়ে যা আসে তাই লাভ এবং সেটার লাভ এর টাকা দিয়ে পারমানেন্টলি কিছু করুন আপনার জন্য আপনার ভবিষ্যতের জন্য জীবনের জন্য বি শিওর এমন কিছু যা সবসময় আপনার থাকবে কোন প্রকার নিষেধাজ্ঞা , ইত্যাদি আসার সম্ভাবনা নেই এমন । তবে কখন কি হয় তা আমারা জানি না যেমন জানি না ম্যাট কখন কি বলবে কালকে আমাদের কার সাথে কি ঘটবে তবুও পরিকল্পনা করে যেটার অপরচুনিটি বেশি , লস এর সম্ভাবনা কম , সেটিতে সময় দিন … সাফল্য আসবেই এবং যখন আসবে তখন মানুষ দেখে থাকবে… আমার এই কথা গুলো আপনি বড় বড় সফল ব্যাক্তিত্তদের জীবনের সাথে মিলিয়ে দেখতে পারেন যেনে যাবেন তাদের নেপথ্যের কাহিনী । মরিচিকার পেছনে না ছুটে লক্ষ্য স্থির করে ফেলুন ।

আরও কিছু কথা… এমন কিছু করবেন না যেমন আজকে এটা ভাল লাগল আজকে এটা করলাম কালকে এটা ভাল লাগল কাল ওটা করলাম । এই জিনিসটা পুরোপুরি নিজেকে দিয়ে বলছি , আমি নিজেই এমন ছিলাম । অনেক চেস্টা করছি এই গন্ডি থেকে বের হয়ে আসতে । যখন যেটা ভাল লাগত তাই করেছি তাই এই জীবনে এখনও সিরিয়াসলি কোন কিছুতে সেভাবে এক্সপার্ট হতে পারিনি । যদি এভাবে লাফ ঝাপ না দিয়ে একটা জিনিস এর প্রতি লেগে থাকতাম , একটা প্ল্যান সেট করে এগিয়ে যেতাম তাহলে এতদিনে কিছু একটা হতে পারতাম । হুম তবে লাফালাফি করবেন ততক্ষন পর্জন্ত যতক্ষন না আপনি আপনার নিদিষ্ট গোল বার খুজে পাচ্ছেন সেটা পেলেই সেটাকে দুর্গ বানিয়ে ফেলুন । যাই করবেন মার্কেট রিসার্চ করে করুন । লাভ ক্ষতি দেখে করুন । লাভের সম্ভাবনার হার কত তা দেখুন ।

পরিশেষে আমি গুছিয়ে লিখতে পারি না এবং তেমন কেউও নাযে আমার কথা আপনাদের শুনতে হবে তবে আমার নিজের এই অল্প কিছুদিনের ছোট ভার্চুয়াল লাইফ এর আলোকে কথাগুলো লিখলাম । কাউকে কস্ট দেয়া বা উদ্দেশ্য করে নয় আর আমার মতের সাথে অনেকের মিল নাও থাকতে পারে এবং সে কারনেই আমরা মানুষ , আমাদের চিন্তা ধারার পার্থক্য রয়েছে বলেই , সবাই ভাল থাকবেন ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <s> <strike> <strong>